Placeholder canvas
HomeScrollদীর্ঘ আইনি লড়াই শেষে ২৭ বছর পর চাকরি কলকাতা পুরসভায়

দীর্ঘ আইনি লড়াই শেষে ২৭ বছর পর চাকরি কলকাতা পুরসভায়

১৯৯৭ সাল থেকে শুরু লড়াই

Follow Us :

কলকাতা: তিলজলা চৌভাগা এলাকার বাসিন্দা হরেন্দ্র নাথ নায়েক। ছিলেন কলকাতা পুরসভার ট্যাক্স কালেক্টর (Tax Collector of Calcutta Municipality)। ১৯৯৬ সালে শারীরিকভাবে অসুস্থ হন। ১৫ ই জুলাই ১৯৯৭ সালে কলকাতা পুরসভার মেডিকেল বোর্ড তাঁকে সম্পূর্ণভাবে শারীরিক অক্ষম বলে ঘোষণা করে। তৎকালীন কলকাতা পুরসভার (Kolkata Municipal Corporation) আইন অনুযায়ী এমন ক্ষেত্রে তাঁর পরিবারের একজন চাকরি পাওয়ার যোগ্য। স্পেশাল গ্রাউন্ডে। হরেন্দ্রলালের বড় ছেলে উত্তমের চাকরি পাওয়ার আবেদন। চাকরিত পাওয়ার আগেই ১৯৯৭ সালের ২০ জানুয়ারি হরেন্দ্র নাথের মৃত্যু। ওই বছরই উত্তমকে চাকরি পাওয়ার যোগ্য ঘোষণা করে পুরসভার ডেপুটি পার্সোনাল ম্যানেজারের নেতৃত্বাধীন কমিটির সুপারিশ। কিন্তু কোন এক অজ্ঞাত কারণে পরিবারটিকে পেনশন বা কোন রকম সুযোগ-সুবিধা না দিয়ে স্রেফ ৪৪ হাজার ৯৭ টাকা প্রদান ।

আরও পড়ুন: রাম মন্দিরের উদ্বোধনে আমন্ত্রণ প্রত্যাখ্যান নাগা সাধুদের

পুরসভায় করা আবেদন নিবেদন ব্যর্থ। ২০১৪ সালে হাইকোর্টে (Calcutta High Court) মামলা উত্তমের। পুরসভাকে বিষয়টি বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার নির্দেশ। কিন্তু ২০১৪ সালের আগস্টে পুরসভায় উত্তমের আবেদন খারিজ। ফের মামলা হাইকোর্টে। উত্তমের আইনজীবী আশীষ কুমার চৌধুরীর প্রশ্ন , ২০০৯ সালের বিজ্ঞপ্তি দেখিয়ে ২০১৪ সালে কিভাবে আবেদন খারিজ হয়? যেখানে আইন অনুযায়ী তিনি চাকুরি পাওয়ার যোগ্য। তৎকালীন আইন অনুযায়ী অন্য ব্যক্তিদের চাকরি দেওয়া হয়েছে। অথচ মামলাকারীকে বঞ্চিত করা হয়েছে। কলকাতা পুরসভার নির্দেশ খারিজ। আগামী আট সপ্তাহের মধ্যে উত্তম নায়েককে চাকরিতে নিয়োগের নির্দেশ বিচারপতি সৌগত ভট্টাচার্যের।

আরও অন্য খবর দেখুন

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments