Placeholder canvas

Placeholder canvas
HomeScrollবিজেপির রাজ্য নেতাদের কাজে খুশি প্রধানমন্ত্রী
Lok Sabha Election 2024

বিজেপির রাজ্য নেতাদের কাজে খুশি প্রধানমন্ত্রী

সুকান্ত, শুভেন্দুর সঙ্গে আলাদা বৈঠকে আন্দোলন নিয়ে বাহবা মোদির

Follow Us :

কলকাতা:বিজেপির বাংলার কার্যকর্তাদের পিঠ চাপড়ে দিয়ে গেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi)। শনিবার কৃষ্ণনগরে দলীয় সমাবেশের পর মোদি রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী এবং রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের সঙ্গে আলাদা করে বৈঠক করেন। সূত্রের খবর, সেখানেই তিনি দলের রাজ্য নেতাদের প্রশংসা করেন।

পরে মোদি তাঁর এক্স হ্যান্ডেলে লেখেন, শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) এবং সুকান্ত মজুমদারের (Sukanta Majumdar) সঙ্গে দেখা হয়েছে। সাধারণ মানুষের মধ্যে আমাদের সুশাসনের কর্মসূচি কীভাবে আরও ছড়িয়ে দেওয়া যায়, তা নিয়ে আমরা আলোচনা করেছি। তৃণমূল কংগ্রেসের অপশাসনের বিরুদ্ধে রাজ্য বিজেপির যেসব কার্যকর্তা লড়ছেন, তাঁদের প্রত্যেকের সাহস, আবেগ ও তেজিয়ান লড়াইকে আমি কুর্ণিশ জানাই। সমবেতভাবে আমরা পশ্চিমবঙ্গের জন্য এক উন্নততর ভবিষ্যত গড়ে তুলব। ওই হ্যান্ডেলে প্রধানমন্ত্রী বৈঠকের ছবিও পোস্ট করেছেন।

আরও পড়ুন: কারার ওই লৌহকপাট, ভেঙে ফেল কর রে লোপাট (পর্ব-১৪)

প্রধানমন্ত্রীর পোস্টের পরই শুভেন্দু এবং সুকান্তও আলাদা আলাদা করে এক্স হ্যান্ডেলে প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানান। শুভেন্দু লেখেন, আমি সব সময় মোদিজির অভিভাবকত্ব এবং তাঁর জ্ঞানকে মর্যাদা দিয়ে চলি। আজ পৃথিবীর সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতা মোদিজি যেভাবে বাংলার উদ্যম এবং লড়াইকে স্বীকৃতি দিলেন, তাতে আমরা গর্বিত। মোদিজির নেতৃত্বে আমরা বাংলার উজ্জ্বল ভবিষ্যত গড়ে তুলব।

আরও পড়ুন: সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে বড় শেখ শাহজাহান বলে তোপ কুণাল ঘোষের

সুকান্ত তাঁর এক্স হ্যান্ডেলে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে লেখেন, আপনার নেতৃত্ব দলের সব কার্যকর্তাকে উদ্বুদ্ধ করে। বাংলা তৃণমূলের ভয়ঙ্কর শাসন থেকে মুক্তি চায়। রাজ্যের মহিলারা তৃণমূলের গুন্ডাদের অত্যাচার থেকে রেহাই পেতে চায়। তৃণমূলের দুর্নীতি, হিংসা এবং অপশাসনে বাংলার মানুষ আজ হতাশ। এদিনের সভায় বিজেপির প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে দেখা যায়নি। শুক্রবার আরামবাগেও প্রধানমন্ত্রীর সমাবেশ মঞ্চে দিলীপ ছিলেন না। তিনি তখন ছিলেন দাঁতনে। এদিন সভা পরিচালনা করেন দলের অন্যতম রাজ্য সাধারণ সম্পাদক জগন্নাথ চট্টোপাধ্যায়।

অন্য খবর দেখুন

RELATED ARTICLES

Most Popular