Placeholder canvas

Placeholder canvas
HomeScrollরাজাদের অপমান করেন রাহুল, ভুলে যান বাদশাহদের অত্যাচার: মোদি
Narendra Modi

রাজাদের অপমান করেন রাহুল, ভুলে যান বাদশাহদের অত্যাচার: মোদি

হাজার হাজার মন্দির ধ্বংস করা আওরঙ্গজেবের অত্যাচার মনে রাখে না কংগ্রেস

Follow Us :

বেলগাভি: নির্বাচনী জনসভায় ফের রাহুল গান্ধীকে (Rahul Gandhi) আক্রমণ করলেন নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। আক্রমণের ভাষায় ফের হিন্দু-মুসলমান সুর নিহিত রইল। মোদি বলেন, রাহুল ভারতের মহারাজাদের অপমান করেন কিন্তু নবাব-বাদশাহদের অত্যাচার নিয়ে নীরব থাকেন।

কর্নাটকের বেলগাভিতে (Belgavi) আজ জনসভা করেন প্রধানমন্ত্রী। মঞ্চে দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, “কংগ্রেসের ‘শেহজাদা’ যেসব মন্তব্য করেছেন তা ভোটব্যাঙ্ক তোষণের জন্য ভেবেচিন্তেই করেছেন… কিন্তু নবাব-নিজাম-সুলতান-বাদশাহরা যে অত্যাচার চালিয়েছিলেন সে বিষয়ে একটা শব্দও বলেন না শেহজাদা… আমাদের হাজার হাজার মন্দির ধ্বংস করা আওরঙ্গজেবের অত্যাচার মনে রাখে না কংগ্রেস। আওরঙ্গজেবের যারা প্রশংসা করে সেই সমস্ত রাজনৈতিক দলের সঙ্গে জট করে কংগ্রেস। যারা আমাদের তীর্থস্থান ধ্বংস করেছে, লুঠ করেছে, আমাদের লোকদের হত্যা করেছে, গোহত্যা করেছে, তাদের নিয়ে একটা কথাও বলে না ওরা।”

আরও পড়ুন: এমনকী চাণক্যকেও… ট্রোলিংয়ের মোক্ষম জবাব বোর্ড টপারের!

বিজেপি নেতারা রাহুল গান্ধীর ভাষণের এক ভিডিও শেয়ার করে চলেছেন। সেই ভিডিওর বক্তব্যের প্রেক্ষিতেই মোদির এই আক্রমণ। ওই ভিডিওতে রাহুল বলেছিলেন, “রাজ, মহারাজাদের শাসনকালে তারা যা খুশি তাই করতে পারত এমনকী কারও জমিও ছিনিয়ে নিতে পারত। এই দেশের মানুষের সঙ্গে কংগ্রেস স্বাধীনতা পেয়েছে এবং গণতন্ত্র এনেছে।”

 

এদিকে মোদি এবং রাহুলের বিরুদ্ধে আদর্শ নির্বাচনী বিধি ভঙ্গের অভিযোগ গ্রহণ করেছে দেশের নির্বাচন কমিশন (ECI)। ২৯ এপ্রিলের মধ্যে এই মর্মে জবাব চাওয়া হয়েছে বিজেপি (BJP) এবং কংগ্রেসের (Congress) কাছে। লোকসভা নির্বাচনের প্রচার শুরু হওয়ার পর থেকেই মোদি এবং রাহুলের বিরুদ্ধে নির্বাচনী বিধি ভাঙার অভিযোগ এনেছে যথাক্রমে কংগ্রেস এবং বিজেপি।

সেই সব অভিযোগ গ্রহণ করেছিল কমিশন। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা (JP Nadda) এবং কংগ্রেস সভাপতি মল্লিকার্জুন খাড়্গেকে (Mallikarjun Kharge) এর জন্য জবাবদিহি করতে বলা হয়েছে। জবাব দেওয়ার সময়সীমা ২৯ এপ্রিল বেলা ১১টা। এই নোটিস দিতে গিয়ে কমিশন জানিয়েছে, নির্বাচনী প্রচারে উচ্চপদস্থ নেতাদের বক্তব্যের প্রভাব অনেক বেশি। বিবৃতি বলা হয়, “প্রার্থীদের আচরণের ব্যাপারে প্রাথমিক এবং ক্রমবর্ধমান দায়িত্ব নিতে হবে রাজনৈতিক দলগুলিকে।”

দেখুন অন্য খবর:

RELATED ARTICLES

Most Popular

Video thumbnail
Stadium Bulletin | Virat Kohli | বিরাট রাজের বিদায়
00:00
Video thumbnail
Sandeshkhali | সন্দেশখালির আন্দোলন কি সাজানো?
00:00
Video thumbnail
আমার শহর (Amar Sahar ) | ভোট যুদ্ধে যুযুধান দুই শিবির, জমজমাট বাঁকুড়ার ভোট
02:15
Video thumbnail
Dilip Ghosh | প্রার্থীকে ছাড়াই মেজিয়াতে দিলীপ ঘোষ, সুভাষ সরকারের দেখা না পেয়ে কটাক্ষ তৃণমূলের
01:27
Video thumbnail
Loksabha Election 2024 | কেশপুরের ভারপ্রাপ্ত বিজেপি নেতা তন্ময় ঘোষ গ্রেফতার
01:32
Video thumbnail
৪টেয় চারদিক | 'আমাকে চেনে না, মমতাকে হারিয়েছি', নন্দীগ্রাম নিয়ে হুঙ্কার শুভেন্দুর
47:59
Video thumbnail
Abhishek Banerjee | 'শান্ত বাংলাকে অশান্ত করতে চায় বিজেপি' : অভিষেক
17:24
Video thumbnail
Mamata Banerjee | সৌগত রায় ও সায়ন্তিকার প্রচারে জন্য আজ কলকাতার পথে মমতা
03:09
Video thumbnail
Nandigram | 'নন্দীগ্রামে বিজেপির গুন্ডাদের তাণ্ডব', বাড়িতে ঢুকে ভাঙচুর চালায় বিজেপি: তৃণমূল
02:06
Video thumbnail
Mayna BJP | ময়নাতে বিজেপি কর্মীর উপর হামলার অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে
01:24