Placeholder canvas
HomeBig newsরাজস্থানের কোটায় বাংলার মেধাবী ছাত্রের আত্মহত্যা

রাজস্থানের কোটায় বাংলার মেধাবী ছাত্রের আত্মহত্যা

চলতি বছরে ২৮টি প্রাণ ঝরল

Follow Us :

কোটা: রাজস্থানের (Rajasthan) কোটায় (Kota) ফের মেধাবী ছাত্রের আত্মহত্যা (Suicide)। এবার বাংলার (West Bengal) নিট (NEET) পরীক্ষার্থী ২০ বছরের ফরিদ হুসেন গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করলেন। এনিয়ে চলতি বছরে ২৮ জন পড়ুয়ার আত্মহত্যার ঘটনা ঘটল উচ্চশিক্ষার জন্য প্রশিক্ষণ নিতে গিয়ে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, নিট দেবেন বলে প্রশিক্ষণ নিতে কোটায় গিয়েছিলেন ফরিদ। সেখানে ওয়াকফ নগরে একটি ঘর ভাড়া নিয়ে থাকতেন। সেই ঘরেই ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁর দেহ মেলে। পুলিশ জানিয়েছে, কোনও সুইসাইড নোট মেলেনি।

আরও পড়ুন: বদলে যাবে বাংলার আবহাওয়া, চড়বে পারদ, জানুন পূর্বাভাস

ওই ভাড়া বাড়িতে আরও বেশ কয়েকজন ছাত্র থাকতেন। তাঁদের বক্তব্য অনুযায়ী, বিকেল ৪টে নাগাদও ফরিদকে দেখা গিয়েছে। তারপর থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত তাঁর ঘর ভিতর থেকে বন্ধ ছিল। ডাকাডাকি করেও সাড়া না মেলায় অন্যরা বাড়ির মালিককে খবর দেন। তিনি পুলিশকে জানালে তারা এসে দরজা ভেঙে দেহ উদ্ধার করে। পুলিশ একটি আত্মহত্যার মামলা করে তদন্ত শুরু করেছে। পশ্চিমবঙ্গে ফরিদের বাড়িতে খবর দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত কয়েক মাস ধরে কোটায় বিভিন্ন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে পড়তে আসা বহিরাগত উচ্চশিক্ষার্থী পড়ুয়াদের মধ্যে আত্মহত্যার প্রবণতা বাড়ছে। এনিয়ে স্থানীয় পুলিশ-প্রশাসন এবং বাসিন্দারাও উদ্বিগ্ন। এনিয়ে কোটা শহর কর্তৃপক্ষ বেশ কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করেও ফল কিছুই হয়নি।

অন্য খবর দেখুন

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments