Placeholder canvas
HomeScrollডিএমকে সরকার হিন্দু বিরোধী, দাবি সীতারামনের

ডিএমকে সরকার হিন্দু বিরোধী, দাবি সীতারামনের

তামিলনাড়ুতে রামমন্দির উদ্বোধনের লাইভ সম্প্রচার দেখতে বাধা, দাবি বিজেপির

Follow Us :

নয়াদিল্লি: অযোধ্যায় রামমন্দিরে (Ayodhya Ram Mandir) রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠা প্রধানমন্ত্রী করলেন।  অবিস্মরণীয় মুহূর্তের মধ্যে দিয়ে রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠা সম্পন্ন হল। সোমবার মূল যজমান হিসেবে রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Moldi)। যখন গোটা দেশ যখন রাম আবেগে ভাসছে। তখন ঠিক উলটো ছবি ধরা পড়ল তামিলনাড়ুতে (Tamil Nadu)। অভিযোগ ডিএমকে (DMK) সরকার রাম মন্দিরের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান দেখতে বাধা দিচ্ছে। সেই ঐতিবাসিক মুহূর্তের সাক্ষী থেকে বঞ্চিত সাধারণ মানুষের সঙ্গে অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামনকেও (Nirmala Sitharamn)। বিজেপির দাবি, তামিলনাড়ু পুলিশ এলইডি স্ক্রিন সরিয়ে দিয়েছে। যাতে রকামলালার প্রাণ প্রতিষ্টা দেখতে না পারে কেউ।

তামিলনাড়ুর কাঞ্চীপুরমের একটি মন্দিরে জায়ান্ট স্ক্রিন বসিয়ে রামমন্দির (Ram Mandir) উদ্বোধন দেখানোর ব্যবস্থা করে বিজেপি। তামিলনাড়ু পুলিশ কাঞ্চিপুরম জেলার একটি মন্দিরে রাখা এলইডি স্ক্রিনগুলি সরিয়ে দিয়েছে। সেখানেই হাজির থাকার কথা ছিল নির্মলা সীতারমণের। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন রামলালার প্রাণ প্রতিষ্ঠা অনুষ্ঠানের সরাসরি সম্প্রচার দেখতে যাচ্ছিলেন। অভিযোগ, কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পৌঁছনোর আগেই ওই এলইডি স্ক্রিন ভেঙে দেয় তামিলনাড়ু পুলিশ। এর জেরেই ভেস্তে যায় রামমন্দির উদ্বোধন সরাসরি দেখানোর পরিকল্পনা। এ নিয়ে বড়সড় বিতর্ক তৈরি হয়েছে।

আরও পড়ুন: রামমন্দিরে রামলালার বিগ্রহে প্রাণ প্রতিষ্ঠা সম্পন্ন

সজি সূর্য্য, বিজেপির তামিলনাড়ু ইউনিটের রাজ্য সম্পাদক গোটা বিষয়টি নিজের এক্স হ্যান্ডেলে প্রকাশ করেন। তিনি বিষয়টির তীব্র নিন্দায় সরব হয়েছেন। তিনি লেখেন, কাঞ্চিপুরমের একটি ব্যক্তিগত মন্দির যেখানে ভারতীয় অর্থমন্ত্রী শ্রীমতী নির্মলা সীতারামন অযোধ্যার রামমন্দিরে রামলালার প্রাণ প্রতিষ্টা দেখতে যাচ্ছিলেন। কিন্তু এই মুহূর্তে তামিলনাড়ু পুলিশ মন্দির প্রাঙ্গনে ঢুকে এলইডি স্ক্রিন সরিয়ে ফেলছে। এটা কী রসিকতা?

এদিকে, নির্মলা সীতারামন বলেছিলেন, যে ডিএমকে-এর নেতৃত্বাধীন তামিলনাড়ু সরকারের “নিপীড়ন” করছেন। তিনি আরও বলেন, রাম মন্দিরের প্রাণ প্রতিষ্ঠা অনুষ্ঠানের সম্প্রচার লাইভ দেখার জন্য শুধু কাঞ্চিপুরমেই ৪০০ জায়গায় ৪৬৬টি এলইডি স্ক্রিন ভেঙে দিয়েছে ডিএমকে (DMK)। লাইভ টেলিকাস্ট রুখতে জায়গায় জায়গায় পুলিশ মোতায়েন করা হচ্ছে। এতেই বোঝা যায় ডিএমকে সরকার কতটা হিন্দু বিরোধী।

আরও অন্য খবর দেখুন

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments