Placeholder canvas

Placeholder canvas
HomeScrollহাফ ডজন গোল দিয়ে কারাবাও কাপের ফাইনালে চেলসি

হাফ ডজন গোল দিয়ে কারাবাও কাপের ফাইনালে চেলসি

Follow Us :

লন্ডন: মরসুমের শুরুতে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ (EPL) ট্রফির দাবিদার হিসেবে চেলসিকে (Chelsea FC) দেখেছিলেন অনেকেই। কিন্তু ক্রমাগত খারাপ পারফরম্যান্স করে তাদের প্রথম চারে শেষ করাই কঠিন। স্বাভাবিকভাবেই কোচ মরিসিও পচেত্তিনোর (Mauricio Pochettino) উপর চাপ বাড়ছে। এ অবস্থায় তাই যে কোনও ট্রফি জিততে মরিয়া তিনি। কারাবাও কাপের (Carabao Cup) সেমিফাইনালে দুর্বল মিডলসব্রোর (Middlesbrough) বিরুদ্ধে তাই যথেষ্ট শক্তিশালী দল নামিয়েছিলেন তিনি। মিডলসব্রোকে ৬-১ হোলে চূর্ণ করে ফাইনালে উঠল চেলসি। দুই লেগ মিলিয়ে ফলাফল হল ৬-২।

জোড়া গোল করেন তরুণ প্রতিভা কোল পামার (Cole Palmer)। প্রথমার্ধেই চারটে গোল পুরে দেয় লন্ডনের ক্লাব। প্রথম গোলটি ছিল আত্মঘাতী। তারপর গোল করেন যথাক্রমে এনজো ফার্নান্ডেজ (২৯’), অ্যাক্সেল দিসাসি (৩৬’) এবং কোল পামার (৪২’)। দ্বিতীয়ার্ধে বেশ কিছুক্ষণ চেলসির ফরোয়ার্ডদের আটকে রাখে মিডলসব্রোর রক্ষণ। কিন্তু ৭৭ মিনিটে ফের গোল করেন পামার। ৮১ মিনিটে হাফ ডজন করেন নোনি মাডুয়েকে।

আরও পড়ুন: বিরাটের অনুপস্থিতি, বাজবল নিয়ে কী বললেন দ্রাবিড়

 

কারাবাও কাপ কিংবা এফএ কাপে প্রতি বছরই অঘটন দেখা যায়। নীচের ডিভিশনের দুর্বল দল কখনও কখনও প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবকে হারিয়ে দেয়। কিন্তু এদিন মিডলসব্রোকে নিয়ে ছেলেখেলা করেছে চেলসি। ফিনিশিং ঠিকঠাক হলে আরও গোল হতে পারত। এদিকে ম্যাচের শেষের দিকে অফসাইডের জন্য মিডলসব্রোর একটি গোল বাতিল হয়। কয়েক মুহূর্ত পরেই বক্সের বাইরে থেকে বাঁক খাওয়ানো শটে সান্ত্বনা গোল করেন মর্গ্যান রজার্স।

বুধবার অন্য সেমিফাইনালে ফুলহ্যামের মুখোমুখি লিভারপুল। মহম্মদ সালাহর চোট থাকলেও লিভারপুলই ফেভারিট। প্রথম লেগে ২-১ এগিয়ে জুর্গেন ক্লপের দল। কোনও অঘটন না হলে ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে ফাইনালে মুখোমুখি হবে চেলসি ও লিভারপুল।

 

 

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments